for Add

ডিআরইউর ক্রীড়া সম্পাদক পদে মাকসুদা লিসার বিশাল জয়

ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির ক্রীড়া সম্পাদক পদে চমক দেখালেন মাকসুদা লিসা। প্রথম নারী হিসেবে এই পদে বিজয়ী হলেন তিনি। ডিআরইউর প্রতিষ্ঠার পর থেকে ক্রীড়া সম্পাদক পদে পুরুষ সদস্যরাই দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন। অবশেষে সেই ধারা ভেঙে নতুন ইতিহাস গড়লেন ভয়েস অব এশিয়ার এই সাংবাদিক।

মাকসুদা লিসা এর আগে তিনবার এ পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেও সফল হতে পারেননি। তারপরও দমে যাননি তিনি।

পঞ্চমবারের মতো দাঁড়িয়ে অবশেষে সাফল্যের মুখ দেখলেন তিনি। সোমবার অনুষ্ঠিত ডিআরইউ নির্বাচনে তিনি ২৬৩ ভোটে কালবেলার মো. মজিবুর রহমানকে পরাজিত করেন। লিসা পেয়েছেন ৭৯২ ভোট। মজিবুর পেয়েছেন ৫২৯ ভোট।

নির্বাচনে সভাপতি পদে জয় পেয়েছেন বাংলাদেশ সংবাদ সংস্থার (বাসস) মুরসালিন নোমানী। ৫২৬ ভোট পেয়ে জয়ী হয়েছেন তিনি। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী শাহনেওয়াজ দুলাল পেয়েছেন ৪৪৭ ভোট।

সাধারণ সম্পাদক পদে নির্বাচিত হয়েছেন সমকালের মশিউর রহমান খান। তিনি পেয়েছেন ৬৯২ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী তোফাজ্জল হোসেন পেয়েছেন ৪২৬ ভোট।

সহসভাপতি পদে বিজয়ী হয়েছেন উসমান গণি বাবুল। তিনি পেয়েছেন ৫৫৩ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী নজরুল কবীর পেয়েছেন ৪৮৬ ভোট।

সাংগঠনিক সম্পাদক পদে জয় পেয়েছেন দৈনিক ইনকিলাবের মাইনুল হাসান সোহেল। তিনি পেয়েছেন ৭৭০ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আবদুল্লাহ আল কাফী পেয়েছেন ২৯৬ ভোট।

যুগ্মসাধারণ পদে বিজয়ী হয়েছেন আরাফাত দাড়িয়া। তিনি পেয়েছেন ৩২৬ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী মেহদি আজাদ মাসুম পেয়েছেন ২৭০ ভোট।

এছাড়া অর্থ সম্পাদক পদে বিজয়ী হয়েছেন শাহ আলম নুর, দফতর সম্পাদক পদে মো. জাফর ইকবাল, তথ্যপ্রযুক্তি ও প্রশিক্ষণ সম্পাদক পদে আব্দুল হালিম মোহাম্মদ, সাংস্কৃতিক সম্পাদক পদে মিজান চৌধুরী ও আপ্যায়ন সম্পাদক পদে মো. নঈমুদ্দীন জয় পেয়েছেন।

এর আগে নারী সম্পাদক পদে রীতা নাহার, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক পদে মাইদুর রহমান রুবেল ও কল্যাণ সম্পাদক পদে খালেদ সাইফুল্লাহ বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন।

কার্যনির্বাহী সদস্য পদে যারা জয় পেয়েছেন- ঢাকা টাইমসের আজিজুর রহমান (রহমান আজিজ, ৭৩০ ভোট), এম এম জসিম (৭৯২ ভোট), রুমানা জামান (৭১৩ ভোট), মো. মাহবুবুর রহমান (৬৯০ ভোট), রফিক রাফি (৬৬৬ ভোট), নার্গিস জুঁই (৬৩৮ ভোট) ও জাহাঙ্গীর কিরণ (৫৫১ ভোট)।

সংগঠনটির ২০২১ সালের কার্যনির্বাহী কমিটির নির্বাচনে সভাপতি, সহসভাপতি, ১২টি সম্পাদকীয় ও ৭টি কার্যনির্বাহী সদস্যসহ ২১টি পদের বিপরীতে এবারের নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন ৪১ জন। নির্বাচনে এক হাজার ৩৮১টি ভোট প্রয়োগ করেন সদস্যরা। মোট ভোটার সংখ্যা এক হাজার ৬৯৩টি।

for Add