>> টেনিস <<

  • বিশ্বের এক নম্বর টেনিস তারকা নোভাক জকোভিচ মনে করেন ইউএস ওপেনের খেলার জন্য যে ধরনের কঠোর স্বাস্থ্যবিধির নির্দেশনা দেয়া হয়েছে তা মেনে স্বাভাবিকভাবে একজন খেলোয়াড়ের অংশ নেয়া একেবারেই অসম্ভব। করোনাভাইরাসের কারণে এ বছর নিউইয়র্কে গ্র্যান্ড স্ল্যাম আয়োজন নিয়েই শঙ্কা দেখা দিয়েছিল। জকোভিচ স্বীকার করেছেন আয়োজকদের

  • ফোর্বস ম্যাগাজিনের তালিকায় বিশ্বের শীর্ষ আয়ের ক্রীড়াবিদ হিসেবে ১০০ জনের মধ্যে সবার উপরে আছেন টেনিস তারকা রজার ফেদেরার। ১০৬.৩ মিলিয়ন মার্কিন ডলার আয় করে প্রথমবারের মত ফেদেরার এই তালিকায় শীর্ষ স্থান দখল করেছেন। ২০ বারের রেকর্ড গ্র্যান্ডস্ল্যাম বিজয়ী সুইস এই সেনসেশন টেনিসের কোন খেলোয়াড় হিসেবে

  • এন্ডি মারে ইনজুরি থেকে সুস্থ হয়ে আগামী ২৩ জুন টেনিস কোর্টে ফিরছেন। যুক্তরাজ্যের জাতীয় স্বাস্থ্য সেবা সংস্থার সাহায্যার্থে একটি প্রদর্শনী টুর্নামেন্টের আয়োজন করেছেন মারের ভাই জেমি। এই ম্যাচ দিয়েই আবারো খেলায় ফিরছেন মারে। জেমি রুদ্ধদার গ্যালারিতে আয়োজিত প্রদর্শনী প্রতিযোগিতাটির নাম দিয়েছেন স্ক্রোডার্স ব্যাটল অব দ্য

  • বিশ্বব্যাপী মহামারী আকারে ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাসের উৎপত্তিস্থল হিসেবে পরিচিত উহানে ধীরে ধীরে জীবনযাত্রা স্বাভাবিক হতে শুরু করেছে। আর তারই ধারাবাহিকতায় এ মাসের শুরু থেকে খুলে দেয়া হয়েছে উহান ওপেনের ভেন্যু উহান টেনিস কোর্টটি। উহান ওপেন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এ সম্পর্কে একটি ভিডিও পোস্ট করেছে যেখানে

  • সেরেনা উইলিয়ামসকে হারিয়ে বছরের প্রথম গ্র্যান্ড স্লাম অস্ট্রেলিয়ান ওপেন জিতেছিলেন। অ্যাঞ্জেলিক কারবার বছরটা শেষ করলেন ইউএস ওপেনের শিরোপা দিয়ে। নিউইয়র্কে গতকাল(শনিবার) রাতের ফাইনালে চেক প্রজাতন্ত্রের কারোলিনা প্লিসকোভাকে ৬-৩, ৪-৬, ৬-৪ গেমে হারিয়েছেন জার্মান এই টেনিস তারকা। আর্থার অ্যাশ স্টেডিয়ামে ফ্ল্যাশিং মিডোতে মুখোমুখি হন কেরবার ও

  • ইউএস ওপেনের মহিলা ডাবলস থেকে বিদায় নিয়েছেন সানিয়ারা। প্রি-কোয়ার্টার ফাইনালে সরাসরি সেটে হেরে যান সানিয়া মির্জা ও তাঁর পার্টনার বারবোরা স্ট্রাইকোভা৷ সেই সঙ্গে ইউএস ওপেনে শেষ হয়ে গেল ভারতীয়দের দৌড়৷ ক্যারোলিন গার্সিয়া ও ক্রিস্টিনা ম্যালডেনোভিচের কাছে ৬-৭, ১-৬ হারেন সানিয়ারা৷ প্রথম সেটে হাড্ডাহাড্ডি লড়াই হলেও দ্বিতীয়

  • কিম কারদাশিয়ানের পরিচয় অভিনেত্রী ও মডেল হিসেবে। যুক্তরাস্ট্রের ৩৫ বছর বয়সী কিম একজন ব্যবসায়ীও। কিম কারদাশিয়ান বরাবরই খবরের শিরোনামে থাকেন তিনি৷ কখনো শরীর প্রদর্শন করে, কখনো আবার রঙীন জীবনযাপন করে৷ অ্যাঞ্জেলসের এ সেলেব্রেটি এবার খবরে এলেন টেনিস খেলে। না, তিনি কোনো গ্র্যান্ড স্ল্যাম জেতেননি৷ হতাশ

  • আগামী বছর ব্রিসবেন ইন্টারন্যাশনালে খেলবেন বিশ্বের পাঁচ নম্বর তারকা রাফায়েল নাদাল। আয়োজক সূত্রে তথ্যটি নিশ্চিত করা হয়েছে। ফলে ক্যারিয়ারে এই প্রথমবারের মত অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে মৌসুম শুরু করতে যাচ্ছেন নাদাল। বছরের প্রথম গ্র্যান্ড স্ল্যাম অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের আগে জানুয়ারিতে অস্ট্রেলিয়ার পশ্চিমাঞ্চলীয় শহর ব্রিসবেনে বছরের প্রথম টুর্নামেন্ট অনুষ্ঠিত

  • লন্ডনের পর রিওতে সোনা জিতে অলিম্পিক গেমসে অনন্য কীর্তি সৃষ্টি করলেন অ্যান্ডি মারে। কদিন আগে উইম্বলডন শিরোপা জিতেছিলেন তিনি। রিও অলিম্পিকে সেই ধারাবাহিকতাও অব্যাহত রাখলেন ইংলিশ টেনিস তারকা। আজ (সোমবার) ফাইনালে আর্জেন্টিনার হুয়ান মার্টিন দেল পোত্রোকে ৭-৫, ৪-৬, ৬-২, ৭-৫ গেমে হারিয়ে টেনিসের এককে সোনা

  • পুয়ের্তো রিকোকে নিজেদের অলিম্পিক ইতিহাসে প্রথম সোনা উপহার দিলেন দেশটির নারী টেনিস তারকা মনিকা পুইগ। মেয়েদের টেনিস এককের ফাইনালে জার্মানির আঞ্জেলিক কেরবারকে হারিয়ে সোনা জিতেছেন তিনি। গেমসের অস্টম দিনে ফাইনালে অস্ট্রেলিয়ান ওপেন চ্যাম্পিয়ন কেরবারকে ৬-৪, ৪-৬, ৬-১ গেমে হারিয়ে চমক দেখান মনিকা। পুয়ের্তো রিকোর প্রথম

  • আগের দিন রিও অলিম্পিকে টেনিসের পুরুষ দ্বৈতে মার্ক লোপেজকে নিয়ে সোনা জিতেছিলেন স্পেনের রাফায়েল নাদাল। তবে এককের লড়াইয়ে সেমিফাইনাল থেকেই বিদায় নিয়েছেন এই টেনিস তারকা। সেমিফাইনালে আর্জেন্টাইন তারকা দেল পোত্রোর কাছে ৫-৭, ৬-৪ ও ৭-৬ (৭-৫) সেটে হেরে যান নাদাল। ২০০৮ বেইজিং অলিম্পিকে এই ইভেন্টে

  • অলিম্পিক টেনিসের পুরুষ দ্বৈতে সোনা জিতেছেন স্পেনের রাফায়েল নাদাল ও মার্ক লোপেজ জুটি। আজ (শনিবার) গেমসের সপ্তম দিন রোমানিয়ার ফ্লোরিন মেরজা ও হোরিয়া তাকাও জুটিকে ৬-২, ৩-৬, ৬-৪ গেমে হারান নাদাল-লোপেজ। ২০০৮ সালে বেইজিং অলিম্পিকে এককের সোনা জেতা নাদালের সামনে এবার রিওতেও ডাবল জেতার সুযোগ।

  • রিও অলিম্পিক টেনিসের তারকাদের জন্য হয়ে উঠছে বিভীষিকাময়। একের পর এক অঘটনের জন্ম দিচ্ছে টেনিস। ছেলেদের শীর্ষ তারকা নোভাক জোকোভিচ হেরেছেন প্রথম রাউন্ডেই। আজ(বুধবার) বিদায় বললেন মেয়েদের শীর্ষ তারকা সেরেনা উইলিয়ামসও! তৃতীয় রাউন্ডের খেলায় ইউক্রেনের এলিনা সভিতোলিনার কাছে সরাসরি সেটে হেরেছেন লন্ডন অলিম্পিকে সোনাজয়ী সেরেনা।

  • রিও অলিম্পিকের টেনিস এককে স্বর্ণ হাতছাড়া হয়েছিল আগেই। এবার ডাবলস থেকেও ছিটকে গেলেন নাম্বার ওয়ান তারকা নোভাক জোকোভিচ।আজ (মঙ্গলবার) ডাবলসের দ্বিতীয় রাউন্ড থেকে বিদায় নিতে হয়েছে এই সার্বিয়ান তারকাকে। এদিন শুরুটা অবশ্য দুর্দান্তই হয়েছিল। ক্রোয়েশিয়ার মেরিন মিলিচ ও মেরিন ড্রাগাঞ্জাকে ৬-২, ৬-২ গেমের উড়িয়ে দিয়েই

  • সিডনি, বেইজিং ও লন্ডন অলিম্পিকে নারী টেনিসের দ্বৈতে স্বর্ণ জয়ী দুই বোন সেরেনা উইলিয়ামস ও ভেনাস উইলিয়ামস এবার বিদায় নিলেও প্রথম রাউন্ড থেকেই। চেক জুটি লুসি সাফারোভা ও বারবোরা স্ট্রাইকোভার কাছে প্রথম রাউন্ডে উইলিয়ামস বোনরা হেরেছেন ৬-৩, ৬-৪ গেমে। এর সঙ্গেই উইলিয়ামস বোনেদের চতুর্থবার অলিম্পিক

  • রিও অলিম্পিকে মেয়েদের টেনিস এককে প্রথম রাউন্ড থেকেই বিদায় নিয়েছেন ভেনাস উইলিয়াম। অপরদিকে ডাবলসে হেরে স্বপ্ন ভেঙ্গেছে ভারতীয় তারকা সানিয়া মির্জারও। সোনা জয়ের মিশনে প্রথম রাউন্ডে ৬ নম্বর বাছাই ভেনাসের প্রতিপক্ষ ছিল বেলজিয়ামের ৬২ নম্বর খেলোয়াড় কারস্টেন ফ্লিপকেন্স। ২০০০ সালে সিডনি অলিম্পিকের এককে সোনা জেতা

  • অলিম্পিক গেমসের আগে নিজের আত্মবিশ্বাসটা বাড়িয়ে নিলেন শীর্ষ বাছাই নোভাক জোকোভিচ। বিশ্ব ক্রীড়ার সবচেয়ে বড় আসরে অংশ নেওয়ার আগে প্রস্তুতিটাও দারুন হলো তার। তিনি ঝুলিতে ভরলেন রজার্স কাপের শিরোপা। এ নিয়ে চারবার রজার্স কাপ জিতলেন তিনি। প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে এমন কৃতী গড়ার পর নিশ্চয় অলিম্পিকে

  • হাঁটুর চোটের কারণে আসন্ন রিও অলিম্পিক থেকে নিজের নাম প্রত্যাহার করে নিয়েছেন সুইস টেনিস তারকা রজার ফেদেরার। এমনকি মৌসুমের বাকি সময়টাও আর কোর্টে নামা হচ্ছে না ১৭টি গ্র্যান্ড স্ল্যাম মালিকের। নিজের ফেসবুক পেজে রজার ফেদেরার লিখেছেন, ‘খুব হতাশার সঙ্গে জানাচ্ছি, রিওতে সুইজারল্যান্ডের হয়ে প্রতিনিধিত্ব করতে

  • জিকা ভাইরাস আতঙ্কে আসন্ন রিও অলিম্পিক থেকে নাম প্রত্যাহার করে নিলেন টেনিস তারকা সিমোনা হালেপ ও মিলোস রাওনিক। বর্তমান বিশ্ব র‌্যাংকিংয়ে যথাক্রমে ৫ ও ৭ নম্বরে আছেন হালেপ ও রাওনিক। জিকো ভাইরাসের কারনে এর আগে ২০ জন পুরুষ গলফার অলিম্পিক থেকে নাম প্রত্যাহার করে নেন।

  • পুরুষ এককের ফাইনালে ফেবারিট ছিলেন অ্যান্ডি মারে। এ ব্রিটিশ তারকার হাতেই শেষ পর্যন্ত শোভা পেয়েছে উইম্বলডনের ট্রফি। কানাডিয়ান তারকা মিলোস রাওনিককে সরাসরি ৬-৪, ৭-৬, ৭-৬ সেটে হারিয়ে দ্বিতীয়বারের মত উইম্বলডনের সোনালি ট্রফিতে চুমু আঁকলেন অ্যান্ডি মারে। উইম্বলডনের সেন্টার কোর্টে এদিন হাজির ছিলেন ডিউক অ্যান্ড ডাচেস